1. admin@dailygoraishobvotha.com : dailygorai : Salim Takku
শুক্রবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২১, ০১:৩৯ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
যেভাবে মাদক ব্যবসাহী থেকে পাটিকাবাড়ি ইউপি’ চেয়ারম্যান সফর আলী- গড়াই সভ্যতা কুষ্টিয়া পাটিকাবাড়ি ইউপি’ চেয়ারম্যানের মাদক সেবনের ভিডিও ভাইরাল- গড়াই সভ্যতা কুষ্টিয়া মহিলাদলের কর্মী সম্মেলন অনুষ্ঠিত-গড়াই সভ্যতা উৎসবমুখর পরিবেশে ১৪ ইউপি নির্বাচন সম্পন্ন- গড়াই সভ্যতা ঝিনাইদহে হিজড়া প্রার্থীর কাছে নৌকার ভরাডুবি- গড়াই সভ্যতা ঘরে বসে ৩০টি দেশে মোস্তাকিমের তথ্যপ্রযুক্তি সেবা- গড়াই সভ্যতা কুষ্টিয়ায় পদ্মা নদী থেকে অর্ধগলিত অজ্ঞাত ব্যক্তির লাশ উদ্ধার-গড়াই সভ্যতা কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচন করতে পুলিশ নিরপেক্ষ ভাবে দায়িত্ব পালন করবে ..এসপি- গড়া ই সভ্যতা করোনাভাইরাসের নতুন ধরন ওমিক্রনকে ‘উদ্বেগজনক’ বললেন বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা- গড়াই সভ্যতা কুষ্টিয়া সদরের ১১ টি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন আগামী ৫ জানুয়ারী- গড়াই সভ্যতা

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে বেশি বেশি চুমু খান!- গড়াই সভ্যতা

প্রতিবেদকের নাম:
  • প্রকাশের সময় : রবিবার, ৭ নভেম্বর, ২০২১
  • ৫৮ বার পঠিত

বারবার চুমু খেলে রোগ প্রতিরোধ শক্তি বাড়ে’ নতুন গবেষণায় এমনই খবর দিয়েছে বিশেষজ্ঞরা। তার বলছে, ১০ সেকেন্ডের চুম্বনে ৮ কোটি ব্যাক্টেরিয়া বিনিময় হয় দেহে। এর মাধ্যমে ক্রমশ শক্তিশালী হয়ে রোগের সঙ্গে লড়াই করার ক্ষমতা বেড়ে যায়।

নতুন গবেষণায় বলা হয়েছে, চুমু খেলে একধরনের ব্যাকটেরিয়ার আদান প্রদান হয়। ঠোঁটে ঠোঁটে চুমুর কারণে এর প্রশারও হয় ব্যাপক। দীর্ঘক্ষণ চুম্বনে নারী-পুরুষ দুজনের শরীরে এ ব্যাকটেরিয়ার প্রবেশ করলেই বাড়ে রোগ প্রতিরোধ শক্তি।

নেদারল্যান্ডস অর্গানাইজেশন ফর অ্যাপ্লায়েড সাইন্টিফিক রিসার্চের এক দল বিজ্ঞানী তাদের গবেষণায় এই ব্যাকটেরিয়া খুঁজে পেয়েছেন। তারা বলছেন, চুমু খাওয়ার সময়ে দুজনের জিভ স্পর্শে আসে। এক জনের লালা পৌঁছায় অন্যের শরীরে। ১০ সেকেন্ডের চুম্বনে ৮ কোটি ব্যাক্টেরিয়া বিনিময় হয় সঙ্গীদের দেহে। এটি ক্রিয়া করে প্রবেশের মাধ্যমে। পরে ক্রমশ শক্তিশালী হয়ে ওঠে। রোগের সঙ্গে লড়াই করার ক্ষমতা বেড়ে যায়।

প্রেমিক যুগল সবসময় নিজেদের সঙ্গ পেতে চায়। পাশাপাশি বা কাছাকাছি থাকলে দুজনের মধ্যে সম্পর্কটা গভীর করে চুমু। তাই গবেষকরা বলছেন, রাগ হোক বা প্রেম, খুশির সংবাদ হোক বা দুঃখের অন্তত আট-নয়বার চুমু খান!

বিজ্ঞানীদের বক্তব্য, রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতার সঙ্গে চুম্বনের সম্পর্ক নিয়ে এর আগে গবেষণা হয়নি। তবে আগে অনেক বিজ্ঞানীই জানিয়েছেন, শরীর যত ধরনের ব্যাক্টেরিয়ার সঙ্গে পরিচিত হবে, ততই বাড়বে রোগের সঙ্গে লড়ার ক্ষমতা। চুম্বন সেই কাজটাই করে। এক ব্যক্তির শরীরে উপস্থিত ব্যাক্টিরিয়া আর এক জনের দেহে যায়।

চুমু খেলে ইমিউনিটি বাড়ে। জন্মগত চোখের সমস্যা দূর হয়। এছাড়া আরও বেশ কিছু জন্মগত জটিল রোগও সেরে যায়। ঠোঁটের সংস্পর্শে সাইটোমেগালোভাইরাস শরীরের নানা উপকার করে। তাই বলা হচ্ছে অন্তসত্ত্বা অবস্থাতেও এই অভ্যাস জারি রাখলে হবু সন্তানের জিনগত কোনো ত্রুটি থাকে না।

পাঁচ মিনিট টানা চুমু খেতে হবে। তবেই ঝরবে ক্যালোরি। এতে মোটামুটি ১০ মিনিট ট্রেডমিলে ছোটার সমান।

চুমু যেকোনো সম্পর্ককে আরও গভীরে যেতে সাহায্য করে। ঠোঁট, চিবুক, জিভে জিভ ঠেকিয়ে গভীর চুমুতে শরীরে হরমোনের তারতম্য হয়। ফলে আপনি আপনার প্রিয়জনের একটা গন্ধ পান। সেখান থেকেই তৈরি হয় গভীর বন্ধন। এমনটাই কিন্তু বিজ্ঞানই বলছে। এছাড়াও মন তরতাজা থাকে।

যারা দীর্ঘদিন ধরে চুমু নিয়মিত চুমু তাদের মুখের চামড়া দীর্ঘদিন টানটান থাকে। চিবুক শক্ত থাকে। গবেষণা বলছে চুমু খাওয়ার সময় মুখের ৩০টি পেশি একসঙ্গে সক্রিয় থাকে।

আমাদের দৈনন্দিন জীবনে না চাইতেই সৃষ্টি হয় নানা ধরনের চাপ। বাড়ি কিংবা অফিস সব জায়গাতেই নানা সমস্যায় ভুগতে হয়। সেক্ষেত্রে একটু চুমু খেলে শরীর থেকে ফিল গুড হরমোন নির্গত হয়।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর
© All rights reserved © 2019 daily gorai
Theme Customized BY LatestNews